Breaking News
Home / Breaking News / শতাধিক সন্ত্রাসী কুপিয়ে হত্যা করলো যুবলীগ কর্মীকে

শতাধিক সন্ত্রাসী কুপিয়ে হত্যা করলো যুবলীগ কর্মীকে

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের কেন্দ্রস্থলে শতাধিক সন্ত্রাসী একসঙ্গে জড়ো হয়ে রামদা, চাপাতি, কিরিচ নিয়ে হামলা চালিয়ে যুবলীগকর্মী ইউসুফ মনিরকে (৪৮) হত্যা করেছে। হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন নিহতের ভাই পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ইয়াকুব সুমন (৪৫)। এ সময় তাদের বাসায়ও হামলা চালানো হয়।
গতকাল শুক্রবার রাত ৯টার দিকে শহরের রথখলা এলাকায় হামলার এ ঘটনা ঘটে। পরে দুই ভাইকে গুরুতর আহত অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে রাত ১১টার দিকে চিকিৎসক ইউসুফ মনিরকে মৃত ঘোষণা করেন।
কিশোরগঞ্জ মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আহসান হাবিব বলেন, ‘হামলার খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায় এবং শহরের বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ১০ জনকে আটক করে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। তবে সন্ত্রাসী হামলার কারণ এখন পর্যন্ত জানা যায়নি।’
কিশোরগঞ্জ মডেল থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুবকর সিদ্দিক বলেন, হামলার কারণ জানার চেষ্টা করছে পুলিশ। সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাতে রথখলা এলাকার ঈশা খাঁ রোডে অস্ত্রসস্ত্র নিয়ে শতাধিক যুবক প্রথমে ইউসুফ মনিরের ওপর হামলা চালায়। এ সময় তাঁর ছোটভাই কাউন্সিলর ইয়াকুব সুমন ছুটে এলে তাঁর ওপরও চড়াও হয় সন্ত্রাসীরা। এতে তারা দুই ভাই গুরুতর জখম হন।
সন্ত্রাসীরা এ সময় ঘটনাস্থলের আশপাশে পার্কিং করা প্রাইভেটকারসহ কয়েকটি যানবাহনও ভাঙচুর করে। সেখান থেকে গিয়ে সন্ত্রাসীরা আখড়াবাজার এলাকায় কাউন্সিলরের বাসভবনেও হামলা চালায়।
স্থানীয়রা আহত দুজনকে প্রথমে কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখান থেকে চিকিৎসককের পরামর্শে আশংকাজনক অবস্থায় তাদের দুজনকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানেই একজন মারা যান। নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে রয়েছে।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com