Home / Breaking News / মিয়ানমারে একটি সেচ বাঁধ ভেঙে প্রায় ৮৫টি গ্রাম ডুবে গেছে এবং ৬৩ হাজারেরও বেশি লোক তাদের ঘরবাড়ি ছাড়তে বাধ্য হয়েছেন।

মিয়ানমারে একটি সেচ বাঁধ ভেঙে প্রায় ৮৫টি গ্রাম ডুবে গেছে এবং ৬৩ হাজারেরও বেশি লোক তাদের ঘরবাড়ি ছাড়তে বাধ্য হয়েছেন।

অনলাইন ডেস্ক :বুধবার দেশটির মধ্যঞ্চলীয় সওয়ার খাঁড়ির ওই বাঁধটি ভেঙে যায়; এতে নেমে আসা পানির প্রবল ধারায় সামনের গ্রামগুলো ভেসে যায় এবং নিকটবর্তী সওয়ার ও ইয়েদাশি শহর ডুবে যায়।

ওই দিনই দেশটির দমকল বাহিনী, সেনারা ও কর্মকর্তারা উদ্ধার অভিযান শুরু করে দেন বলে খবর বার্তা সংস্থা রয়টার্সের।।

এ ঘটনায় মিয়ানমারের একটি গুরুত্বপূর্ণ মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে গেছে বলে বৃহস্পতিবার জানিয়েছে দেশটির একটি রাষ্ট্রীয় সংবাদপত্র।

বাঁধের কাছে বন্যার পানি কমেছে বলে গ্লোবাল নিউ লাইট অব মিয়ানমার সংবাদপত্রকে জানিয়েছেন দেশটির সেচ ও পানি সম্পদ ব্যবস্থাপনা বিভাগের উপমহাপরিচালক জাও লউয়িন তুন।

“ক্ষতিগ্রস্ত পানি বের হওয়ার পথটির কারণেই বাঁধটি ভেঙে পড়েছে। এমনিতে বাঁধটির অবস্থা ভালোই ছিল,” তিনি এমনটি জানিয়েছেন বলে উদ্ধৃতি দিয়েছে সংবাদপত্রটি।

বাঁধ ভেঙে ৮৫টি গ্রাম বন্যাকবলিত হয়েছে এবং এতে ৬৩ হাজারেরও বেশি লোক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, পাশাপাশি গুরুত্বপূর্ণ একটি মহাসড়কের একটি অংশও ডুবে গেছে বলে জানিয়েছে পত্রিকাটি।

দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়েছে, কয়েকদিন আগে বাঁধের ক্ষতিগ্রস্ত অংশ দিয়ে অতিরিক্ত পানি বের হওয়া শুরু হলে স্থানীয় বাসিন্দারা উদ্বিগ্ন হয়ে ওঠে, কিন্তু কর্তৃপক্ষ বাঁধটি ঠিক আছে বলে সবাইকে আশ্বস্ত করেছিল।

বাঁধটির পানি ধারণ ক্ষমতা ২,১৬,৩৫০ একর-ফুট বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

বন্যার কারণে ইয়াঙ্গুন, মান্দালয় ও রাজধানী নেপিতোকে সংযোগকারী মহাসড়কের একটি ব্রিজ ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ায় ওই পথে যান চলাচল বন্ধ আছে।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com