Breaking News
Home / Breaking News / কবি শ্যামল ব্যানার্জীর কবিতা “তবু যাবে চলে”

কবি শ্যামল ব্যানার্জীর কবিতা “তবু যাবে চলে”

কবিতা — তবু যাবে চলে
শ্যামল ব্যানার্জী
২০/১২/২০২১

এমন করে কেন….
এমন করে কি চলে যেতে হয়?
কত কথা বলার ছিলো, না বলা থেকে যায়,
এমন করে কি চলে যাওয়া যায়।
যখন ঠিক মাথার ওপর তারা নামছিলো ধীরে ধীরে ..
বৃষ্টি এলো নেমে তারা ঢেকে,
তোমার চোখে জল.. তবু যাবে চলে..
এর কি কোনো মানে হয়।
যদিও…
হাজার আলোক বর্ষ দূরে আমি নিজেকে রেখেছি উল্কার মত, এসোনা আমার কাছে, জ্বলে যাবে।
তবুও অবাধ্য দৃষ্টি আমার তোমাকে খোঁজে, শুধু তোমাকেই খোঁজে।
যদি পারো তবে এসো, এসো শিকারীর মত নিঃশব্দ পায়ে,
তোমার লোভোনীয় ফাঁদে জড়িও আমায়,
শিকার করো যত হীনমন্যতা আমার,
মুক্ত কর, অক্টোপাসের ডানা কেটে,
তুলে নাও পারো যদি, তোমার বাহুমূলে।
তবু কোথাও ফাঁকি থেকে যায়…
আপাত ভরাটের মধ্যে,
না দেখা সেই কিছুর চিড় জ্বলজ্বল করে,
একটা ফাঁকি হঠাৎ করে মাথা চাড়া দেয়,
টিউমারের মতন বেড়ায় দাপিয়ে… শরীর জুড়ে।
এক নষ্ট সময় যা একান্ত আমার ছিলো ।
সে এক নষ্ট সময়, নীরব শত্রু যেন,
এক গুটি পোকা,
কখন যে জাল বুনে গেছে গভীর প্রত্যয়ে,
কালবেলা এক ঘুমের ভেতর,
বুঝিনি তখন।
আজ, ভাঙা সাঁকোর মত, বিপদ সীমায় নিজেকে দেখি,
কারসিনোমায় ডুবন্ত নাবিক… জীবন সমুদ্রে যেন,
সাঁতারে অপটু হাতে ভবিষ্যৎ খোঁজে।
তুমি কি জানতে এ কথা?
হয়তো কেউই জানেনা, জানবে কি করে?
অপ্রকাশিত কবিতা কখনও পড়েছে কি কেউ?
তাই বলি.. এমন করে কেন,
এমন করে কি চলে যেতে হয়?

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com