Home / Breaking News / চাঁদপুর হরিনা নৌ-পুলিশের ২৩ মামলা ১ কোটি ৭০ লক্ষ মিটার জাল ৭ কেজি জাটকা জব্দ

চাঁদপুর হরিনা নৌ-পুলিশের ২৩ মামলা ১ কোটি ৭০ লক্ষ মিটার জাল ৭ কেজি জাটকা জব্দ

শাহরিয়ার খানঃ
চাঁদপুর জেলায় নৌ পুলিশের সবগুলো ফাঁড়ির মধ্যে হরিনা ঘাট নৌ-পুলিশ সবার চেয়ে বেশি সফলতা অর্জন করেছে।
মার্চ এপ্রিল দুমাস জাটকা রক্ষায় নদীতে অভয়াশ্রম ঘোষণা করার পর থেকে চৌকস পুলিশ কর্মকর্তা হরিনা ঘাট নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মোহাম্মদ নাসিম হোসেনের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে ১ লক্ষ ৭০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল,২শতাধীক জেলেকে আটক করে ২৩ টি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এছাড়া অভিযানে ৭ হাজার কেজি জাটকা ও ৪০ টি জেলে নৌকা জব্দ করা হয়।
জাটকা অভিযান ছাড়াও নৌ পুলিশ মেঘনা নদীতে অবৈধ ভাবে বাগদা চিংড়ির পোনা ধরে পাচার করার সময় ২ লক্ষ ৪০ হাজার পিস বাগদা চিংড়ি সহ একজনকে আটক করেছে।
চাঁদপুরের ইতিহাসে হরিনা ঘাট নৌ পুলিশ সবচেয়ে বেশি অভিযান চালিয়ে জেলে কারেন্ট জাল ও নৌকা জব্দ করতে সক্ষম হয়েছে।
হরিনা ঘাট নৌ পুলিশের ইনচার্জ নাসিম হোসেনের সবচেয়ে বড় সফলতা কারণে তাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন নৌ পুলিশ সুপার কামরুজ্জামান।
শনিবার বিকেলে নৌ পুলিশ সুপার কামরুজ্জামান হরিনাঘাট নৌ পুলিশ ফাঁড়ি পরিদর্শন শেষে নৌ-পুলিশের সাথে আলোচনা করে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা দিয়েছেন।
জাটকা অভিযানের শেষ দিন সর্বশেষ শুক্রবার ভোরে মেঘনা নদীতে অভিযান চালিয়ে ২০ জেলে পাঁচটি জেলে নৌকা সহ ১০ লক্ষ মিটার কারেন্ট জাল জব্দ করে। এ ঘটনায় নৌ-পুলিশ মৎস্য আইনে পাঁচটি মামলা দায়ের করে। জেলেদের আটক করার পর তাদের ছাড়িয়ে নিতে নৌ পুলিশকে হুমকি দেওয়ায় মাছ পাচারকারী ইউসুফ বন্দুকশীর বিরুদ্ধেও মামলা দায়ের করা হয়।
মামলার আসামি ইউসুফ বন্দুকশী পলাতক থাকায় তাকে আটক করতে নৌ পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলে জানা যায়।

এ বিষয়ে হরিনা নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ নাসিম হোসেন জানান, পুলিশ সুপার কামরুজ্জামানের নির্দেশে জাটকা রক্ষায় অভিযান চালিয়ে ১ লক্ষ ৭০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল,২শতাধীক জেলেকে আটক করে ২৩ টি মামলা দায়ের করা হয়েছে। অভিযানে ৭ হাজার কেজি জাটকা ও ৪০ টি জেলে নৌকা জব্দ করা হয়। কারেন্ট জাল ১২ মাস নিষিদ্ধ তাই জাটকা ও কারেন্ট জালের উপর নৌ পুলিশের অভিযান সর্বদা অব্যাহত থাকবে।
মৎস্য আইনে যাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে এদের মধ্যে পলাতক আসামিদের গ্রেফতার করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। জাটকা পাচারকারী ও তাদের মদদ দাতাদের কোন অবস্থাতেই ছাড় দেওয়া হবে না।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com