Home / Breaking News / কলকাতার কবি শুভা লাহিড়ীর দুর্দান্ত কবিতা “জানা নেই কিছু!”

কলকাতার কবি শুভা লাহিড়ীর দুর্দান্ত কবিতা “জানা নেই কিছু!”

#কবিতা:–“জানা নেই কিছু!”
#কলমে:–শুভা লাহিড়ী
#তারিখ:–13/01/2022
******************************
কাল দীর্ঘ কয়েক বছর পরে তোমার মুখোমুখি হওয়ার কি আমার খুব প্রয়োজন ছিলো!
জানিনা!ভগবান কি চান!
শুধু এটাই জানি ,”ভগবান যা করেন তাই নাকি ভালো!”
কিন্তু এখানে ভালোর কিছুই খুঁজে পেলাম না!
তোমায় দেখলাম সবুজ রঙের শার্ট টায়!
বেশ লাগছিলো কিন্তু দেখতে!
জামা টা দেখেই মনে পড়ে গেলো অনেক কথা!
মনে পড়ে গেলো সেদিনের সন্ধ্যে! যেই সন্ধ্যে তে আমি! আমি আমার জীবনের প্রথম চাকরির প্রথম মাসের বেতনের টাকা দিয়ে গড়িয়াহাট থেকে তোমার জন্য কিনে এনেছিলাম!
মনে আছে তোমার!
মনে আছে আমার অল্প বেতনের চাকরির সাথে আমার পছন্দ কে তোমার অপমান করার ভাষাগুলো!
জানি মনে নেই!
আর মনে নেই ব’লেই হয়তো আমার আনা জামাটা তোমার দামী শরীরের স্পর্শ পেয়েছে!
নাকি ইচ্ছে করেই তুমি পরেছো!
নিজের করা অন্যায় গুলোকে নিজেই বিচার করেছো মনে মনে!

যাই হোক, তোমায় দেখে আমার সারা শরীরের ধমনী গুলো উত্তেজিত হয়েছিলো ঠিক কিশোরী বেলার মতো!
অথচ দেখো! আমি এখন কত বুড়িয়ে গেছি!
বলতে পারো!বিচ্ছেদের এত বছর পরেও কেন এমন অনুভূতি!
এমনটা তো হবার কথা ছিলো না!কারণ আমি এই কয় বছরে নিজেকে একটু হলেও পাল্টে ফেলেছি!
তোমার সাথে আমার একসাথে কাটানোর স্মৃতিগুলোকে মন থেকে মুছে ফেলেছি!
আর হ্যাঁ!আমি এখনও চাকরি করছি!
তবে আগের টা নয়!
নিজের বাসস্থানের সাথে সাথে চাকরি টাও পাল্টে ফেলেছি!
বেতনের কথা যদি বলতে বলো তাহলে তোমার থেকে বেশিই পাই!
না!আমি নতুন কোনো সংসার পাতিনি বা পাতার দুঃস্বপ্নও দেখিনি!
আমি শুনেছি, আমাদের মিউচ্যুয়াল বিচ্ছেদের এক মাসের মাথায় তুমি বিয়ে করো!
তোমার সাথে মিনিমাইজ করে চলার পরেও যখন তুমি মুক্তি চাইলে আমি কোনো প্রশ্ন করিনি তোমায়!
কারণ আমার কাছে তোমার সুখে থাকাটাই শেষ কথা ছিলো!
আর তাইতো সকল পরিস্থিতির সাথে মিনিমাইজ আর মিনিমাইজ!
তুমি আমার খরচ দিতে চেয়েছিলে,কিন্তু আমি না করে দিয়েছিলাম!
কারণ আমি যার কাছে এতটাই অসহ্য তার কিছুই আমার চাইনা!
আমার কাছে তোমার এই খামখেয়ালিসূচক বিচ্ছেদ চাইবার পরে আমি কিছুদিন ট্রমায় চলে গেছিলাম!
“ভালোবাসা”,”ভালোলাগা” শব্দ দুটোর ওপরে এত বেশি ঘৃণা চলে এসেছে যে,নতুন করে কাউকে আর ‘ভালোবাসি’ বলতে পারিনি!

কিন্তু অবাক হয়েছিলাম আমি কাল!
তোমার সাথে দেখা হওয়ায় আমার হৃদয় যখন তোলপাড় করছিলো!
তোমার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা মহিলা কে দেখে যখন কষ্ট হচ্ছিলো!
তবে কি আমি নিজেকে পাল্টাতে পারিনি আজও!
আজও কি একইভাবে তোমার উপস্থিতি আমাকে সুখ দেয়!
নাকি অস্বস্তিতে ফেলে কষ্ট দেয়!
জানি না!আর কি চান ভগবান আমার কাছে!
তবে আমি ভগবানের কাছে চাই আমার সকল স্মৃতিরা যেন বিস্মৃতির অতল গহ্বরে তলিয়ে যায়!

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com