Breaking News
Home / Breaking News / শব্দনগরের পরিচালক কবি ‘সারমিন জাহান মিতু’র কবিতা”একলা একটা আমি”

শব্দনগরের পরিচালক কবি ‘সারমিন জাহান মিতু’র কবিতা”একলা একটা আমি”

একলা একটা আমি
সারমিন জাহান মিতু
১১-৯-২০২১

আমার মেঘলা রঙের শাড়ি আর একলা একটা আকাশ,
দেখেছো আমার বিশাল বাড়ির নিঃসঙ্গতার নীরব আঁধার।
গতকাল বিকেলে পদ্ম বিলে যখন উড়ছিলো সারি সারি শঙ্খচিলের দল,
আমি ভেবে নিলাম ওরা হয়তো আমার একলা হবার নির্জনতা খুন করবে— আর আমি উদাসী বাতাসে ওদের ছুঁয়ে প্রাণের স্পন্দন শুনতে পাবো।
প্রণয়ী রাত আমার অন্ধকার ঢেলে ভরাট করে দিলে দিনের সূর্যটাকে,
আসমানী রঙে তখন মেঘের পালকি — আমি ভেসে গেলাম মহাকাশ যতদূরে।
মানুষের অবয়ব গুলো ধীরে ধীরে মুছে যাচ্ছে,
হিসাবের খাতা হাতে অদ্ভুত –অদৃশ্য একটা হাত এগিয়ে এলো — আমি ভয়ে থেঁতলে যাচ্ছি — ট্রাকে পেষা লাশের মতো।
কিন্তু আমার ভেতরটা তখনও লাশ হতে পারেনি,
মনে পড়ে পুতুল খেলার দিন হতে এই শেষযাত্রার মধ্যবর্তী সময়।
একদিন বুকের বাম পাঁজরে যে তোমার জন্য– শত ভালোবাসা আর খুনসুটি –অনুরাগের অনুভূতি।
কিন্তু সবকিছু সময়ের হাতে পরাস্ত এখন — আমার কৃষ্ণচূড়া রঙের শাড়িটা– নীল আকাশ রঙের শোবার ঘরটা,
কেমন অচেনা হয়ে গেছে —একটা আঁশটে ধুপ কাঠির গন্ধ ,
দক্ষিণা জানালার ওপাশে ছোট নদীর তীরে কাঁশফুল আর হিমেল হাওয়া —-সব এখন পর হয়ে গেছে — ঠিক সবাই যেরকম পর হয়ে গেলো আমার।
ঐ যে বলছিলাম হিসাবের খাতা হাতে এগিয়ে আসা আগন্তুক — আর সূর্যের তীব্র দহন–
বড়ো বেশি আপন এখন।
খাতাটা খুলে দেখি শুধু তোমাকে ভালোবাসা ছাড়া কিছু লেখা নেই তাতে — আমার ইবাদতের হিসাব ঘরে শুধু একটি জয়-পরাজয় নিষ্পত্তিতে তুমিই ছিলে।
অথচ দিব্যি তোমাকে ছেড়েই যখন চলে এলাম একলা আমি,
চোখের জলটা তখন তোমার কাছে বড্ড বেশি দামী।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com