Breaking News
Home / Breaking News / জামালপুরে মুজিব বাহিনীর প্রধানের বিদায় রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় বীরের দাফন

জামালপুরে মুজিব বাহিনীর প্রধানের বিদায় রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় বীরের দাফন

নিপুন জাকারিয়া:—

যথাযোগ্য রাষ্ট্রিয় মর্যাদায় চীর বিদায় জানানো হলো জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান, মুজিব বাহিনীর মহকুমা প্রধান, বীর মুক্তিযোদ্ধা এ.বি.এম ফজলুল বারী তারাকে।

তিনি মঙ্গলবার রাত ১১টা ১০ মিনিটে ব্রেইনস্ট্রোক জনিত রোগে নিজ বাড়িতে মৃত্যুবরণ করেন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৪ বছর। এই মহান কৃতিসন্তানের মৃতুতে শোক প্রকাশ করেছেন, ধর্ম প্রতিমন্ত্রী. আলহাজ্ব ফরিদুল হক খান দুলাল, কেন্দ্রিয় আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক. মির্জা আজম এমপি, জামালপুর-৫ আসনের এমপি. ইঞ্জিনিয়ার মোজাফ্ফর হোসেন, জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি. এড. বাকী বিল্লাহসহ বেশকিছু সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

মরহুমের গ্রামের বাড়ি পৌর শহরের পাথালিয়ার জামালুল উলুম মাদ্রাসার ময়দানে বুধবার দুপুরে তাকে প্রথমে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়। গার্ড আব অনার প্রদান করেন, জামালপুর সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার. লিটুস লরেঞ্জ চিরান।

এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন, জামালপুর মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক ডেপুটি কমাণ্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা সুজায়েত আলী ফকির, বীর মুক্তিযোদ্ধা হাফিজুর রহমান বাদশাহ, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোখলেছুর রহমান হীরু, বীর মুক্তিযোদ্ধা সিদ্দিকুর রহমান ও বীর মুক্তিযোদ্ধা সামছুজ্জামান সুরুজ আকন্দসহ স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধারা।

পরে জানাযায় অংশ নিয়ে স্মৃতিচারণমূলক বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ সরকারের যুগ্ম সচিব. শফিক আনোয়ার, জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি. এড. বাকী বিল্লাহ, জামালপুর পৌরসভার বর্তমান মেয়র. ছানোয়ার হোসেন ছানু, সাবেক মেয়র মির্জা খাওয়াতুল আলম মনি, পরিবারের পক্ষ থেকে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আ.ব.ম জাফর ইকবাল জাফু, শহর আওয়ামী লীগের সভাপতি. মাসুম রেজা রহিম, জেলা যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক ফারহান আহমেদসহ রাজনৈতিক ও স্থানীয় অন্যান্য ব্যক্তিবর্গ। পরে উপস্থিত মুসুল্লী ও তার আত্মীয় স্বজনরা তাঁর নামাযে জানাযা অংশ নেন।

এরপর জামালপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে, মরহুমের দ্বিতীয় জানাযা শেষে, তাঁকে জামালপুর পৌর গোরস্থানে সমাহিত করা হয়েছে।

পরিবারসূত্রে জানা যায়, এ.বি.এম ফজলুল বারী তারা ২৯ নভেম্বর ১৯৪৭ সালে জামালপুর পৌর এলাকার পাথালিয়া গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে জন্ম গ্রহণ করেছিলেন। তাঁর পিতার নাম মরহুম আব্দুল মজিদ আকন্দ, মাতা মরহুমা হাজেরা খাতুন। তাঁর চাচা মরহুম এড. আব্দুল হাকিম ছিলেন, এম.এন.এ, এমপি ও গভর্ণর এবং ৬৬ থেকে ৭৫ পর্যন্ত জামালপুর মহকুমা আওয়ামী লীগের সভাপতি। তাঁর ছোট ভাই আ.ব.ম জাফর ইকবাল জাফু জামালপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। বীর মুক্তিযোদ্ধা এড. ফজুলল বারী তারা ছিলেন, তৎকালিণ মহাকুমা ছাত্র লীগের সভাপতি, কেন্দ্রিয় যুবলীগের সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য, জেলা যুব লীগের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক, মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক, স্বাধীনবাংলা ছাত্র পরিষদের সভাপতি, মুজিব বাহিনীর মহকুমা প্রধান।

দাফান শেষে পরম করুণাময়ের দরবারে এই মহান কীর্তিমানের আত্মার শান্তি কামণা করেছেন, তাঁর সহযোদ্ধা, রাজনৈতিক সহচর ও এক সময়ের সহকর্মীরা। মৃত্যুকালিণ এই সূর্য্যসন্তান স্বস্ত্রীক এক কন্যা সন্তানসহ বহুগুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com