Breaking News
Home / Breaking News / ফরিদগঞ্জ ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের নিরাপত্তা হুমকির সম্মুখীন

ফরিদগঞ্জ ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের নিরাপত্তা হুমকির সম্মুখীন

আবু হেনা মোস্তফা কামাল: ফরিদগঞ্জ উপজেলার ৯নং গোবিন্দপুর ইউনিয়ন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্র ও সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা কর্মচারীগণ নিরাপত্তা হুমকির সম্মুখীন। স্বাস্থ্য কর্মকর্তার সঙ্গে চলছে প্রতিবেশীদের হিংসাত্মক মনোভাব। সম্প্রতি স্বাস্থ্য কেন্দ্রের নিরাপত্তা বেষ্টনী নির্মানের পর হতে এ বিরোধ দেখা দিয়েছে। নিরাপত্তা চেয়ে চাকমো একটি লিখিত আবেদন করেছেন উর্ধতন কর্তৃপক্ষ বরাবর। গতকাল বুধবার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশের কর্মকর্তা।

অভিযোগে জানা গেছে, স্বাস্থ্য কেন্দ্রে সম্প্রতি পাকা নিরাপত্তা বেষ্টনী নির্মান করা হয়। নির্মানের সময় ঠিকাদার কোনো এক অদৃশ্য শক্তির ইশারায় স্বাস্থ্য কেন্দ্রের পেছনে একটি পকেট গেইট নির্মান করেন। এটা কার্যাদেশ ও বিধি বহিঃর্ভূত বলে স্বাস্থ্য কর্মকর্তা দাবী করেন।

স্বাস্থ্য কেন্দ্রের নিরাপত্তার প্রশ্নে কর্তৃপক্ষ এ পকেট গেইটটি সন্ধ্যার পর বন্ধ করে দেন। এতে বাধ সাধেন পার্শ্ববর্তী বাড়ির লোকজন। তারা পকেট গেইটটি ব্যবহার করে স্বাস্থ্য কেন্দ্রের ভিতর দিয়ে চলাচল করতে চান। তাদের আপত্তির মুখে গত কয়েকদিন গেইটটি রাত প্রায় সাড়ে আটটার পর বন্ধ করা হয়। কিন্তু তাদের দাবী, গেইটটি রাত ১০টা পর্যন্ত খোলা রাখতে হবে। এতে কর্তৃপক্ষ অপারগতা প্রকাশ করেন।

এ নিয়ে দায়িত্বরত কর্মকর্তা শফিকুর রহমান এর সঙ্গে প্রতিবেশী বাড়ির লোকজন অসদাচরণ করেন। তাকে ও অফিসরে এমএলএস’কে গালমন্দসহ হুমকি ধমকি প্রদান করেন। প্রায় প্রতিদিনই ঘটছে এমন ঘটনা। এতে তিনি নিরাপত্তা হীনতায় ভূগছেন মর্মে উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা তসলিম মিয়া বরাবরে লিখিত আবেদন করেন। তার আবেদনের প্রেক্ষিতে ফরিদগঞ্জের ইউএনও’র সহযোগিতা কামনা করেন তসলিম মিয়া। ইউএনও আবেদনটি পাঠিয়ে দেন ফরিদগঞ্জ থানার ওসি’র বরাবর। এতে, ওসি’র নির্দেশে ফরিদগঞ্জ থানা পুলিশের এএসআই মমিন গতকাল বুধবার স্বাস্থ্য কেন্দ্রটি পরিদর্শন করেন। এ ব্যপারে এএসআই মমিন জানান, সরেজমিন প্রাপ্ত তথ্য আমি উর্ধতন কর্মকর্তাকে জানাবো।

error: Content is protected !!

Powered by themekiller.com